কল্পলোকে ক্রিকেটের গল্প



BDT225.00
BDT300.00
Save 25%

ডব্লিউ জি গ্রেস যদি হঠাৎই আবার রক্তমাংসের রূপ নিয়ে দেখা দেন? টেস্ট ক্রিকেটে প্রথম বলটি করেছিলেন যিনি, সেই আলফ্রেড শ? প্রথম রান, প্রথম সেঞ্চুরির চার্লস ব্যানারম্যান? ভিক্টর ট্রাম্পার, উইলফ্রেড রোডস, জর্জ লোহ্‌ম্যান, ফ্রেড স্পফোর্থ, ক্লেম হিল, রণজিৎসিংজি, সিবি ফ্রাই, সিডনি বার্নস, জ্যাক হবস, ডন ব্র্যাডম্যান...। স্বর্গলোকে ক্রিকেটের অমর সব চরিত্রের তুমুল আড্ডা আর আলাপচারিতা যদি ফিরিয়ে আনে মর্তে্যর সেই সব দিন! 

Quantity


  • Security policy (edit with Customer reassurance module) Security policy (edit with Customer reassurance module)
  • Delivery policy (edit with Customer reassurance module) Delivery policy (edit with Customer reassurance module)
  • Return policy (edit with Customer reassurance module) Return policy (edit with Customer reassurance module)

উপন্যাস?

না, উপন্যাস নয়।

ইতিহাস?

না, ইতিহাসও নয়। 

তাহলে?

বইটিকে আসলে নির্দিষ্ট কোনো সংজ্ঞায় বাঁধা কঠিন। পড়তে শুরু করলে কখনো উপন্যাস মনে হতে পারে, কখনো-বা ইতিহাস। টেস্ট ক্রিকেটের আদিকালের অমর চরিত্রগুলো যখন চোখের সামনে ঘুরে বেড়াবে, কথা বলবে, রসিকতা করবে; মনে হবে বুঝি কোনো উপন্যাস। গল্পের ছলে যখন অবিকল উঠে আসবে মর্তে্য ব্যাট বা বল হাতে তাঁদের কীর্তিগাথা, তখন তো আবার ইতিহাসেরই উঁকিঝুঁকি। এ যেন টাইম মেশিনে চড়ে আশ্চর্য এক ভ্রমণ! যার সঙ্গী ডব্লিউ জি গ্রেস, ক্লেম হিল, ফ্রেড স্পফোর্থ, ভিক্টর ট্রাম্পার, ডন ব্র্যাডম্যান, জ্যাক হবস, রণজিৎসিংজির মতো ক্রিকেট-কিংবদন্তিরা। অভিনব এক প্রয়াস। বাংলা ভাষায় তো নয়ই, অন্য কোনো ভাষাতেও এমন কিছু লেখা হয়েছে বলে জানা নেই। 

Reviews

একেবারে অন্য রকম ক্রিকেট

| 12/11/2019

মলাটবাঁধা উপাদেয় ক্রিকেটের সঙ্গে অনুপম গদ্যের শিল্পিত যুগলবন্দী। বাংলাদেশের ঘরগেরস্থালির অংশ হয়ে যাওয়া ক্রিকেট লিখিয়ে উৎপল শুভ্রর দ্বাদশ প্রকাশনা কল্পলোকে ক্রিকেটের গল্প। বিষয় ও উপস্থাপনার অভিনবত্বে এই বই বাংলা ক্রিকেট লেখালেখির ক্ষেত্রে শুধু নয়, বিশ্ব ক্রিকেট-সাহিত্যে এক নতুন সংযোজন। কল্পনাশ্রিত প্রেক্ষাপটে ক্রিকেটের দালিলিক সত্যকে লেখক এমনভাবে পাঠকের চোখে ভাসিয়েছেন যে আদ্যিকালের ক্রিকেট-সমাজ জীবন্ত হয়ে গ্যালারির সামনে নড়েচড়ে উঠছে। টেস্ট ক্রিকেট শুরুর পর থেকে প্রথম মহাযুদ্ধ পর্যন্ত সময়কাল এই বইয়ের উপজীব্য। কুশীলবেরা সেই সময়কার মাঠকাঁপানো ক্রিকেটার। স্বর্গধামে তাঁদের জীবনযাপনের সব বর্ণাঢ্য খণ্ডচিত্রের ছবি এঁকে, তাঁদের মুখে সংলাপ বসিয়ে শুভ্র খটখটে পরিসংখ্যানসমূহকে অত্যন্ত রসাল করে পরিবেশন করেছেন। ক্রিকেটকে এভাবে পরিবেশন করা যায়, এ কথা কোনো ক্রিকেট-সাহিত্যিক ইতিপূর্বে ভেবেছেন বলে ক্রিকেট বিশ্বের জানা নেই। এই বই উপন্যাস না ইতিহাস—সে প্রশ্নে খোদ লেখকই দ্বিধাগ্রস্ত। জানিয়েছেন, আমরা বইটা আদ্যোপান্ত পড়লে অনুভব করব বইটা গবেষণাধর্মী উপন্যাসোপম ‘ঐতিহাসিক আখ্যান’। প্রাতিষ্ঠানিক অর্থে এটা হয়তো উপন্যাস নয়, তবে উপন্যাসের আমেজ আছে। তবে ইতিহাসটা একেবারে নিরেট কাঠখোদাই। তথ্যের এদিক-সেদিক হওয়া নেই একচুল। গল্প বলার ধারায় এসে পড়েছে নাট্যানুষঙ্গ, এসেছে কবিতা। আর গ্রন্থকার তো অত্যন্ত স্বাভাবিক সাবলীলতায় গ্রন্থজুড়ে বেয়ে চলেন তাঁর উজ্জ্বল উপস্থিতি। কোনো জোরজবরদস্তি নেই। তবে কিছু কিছু অংশে যেখানে লেখককে ধারাবাহিকতার প্রয়োজনে সরাসরি ইংরেজি থেকে অনুবাদ করতে হয়েছে, সেখানে উৎপলীয় গদ্য সামান্য টাল খায়; এবং সেটাই স্বাভাবিক।. <br /> বইটির প্রচ্ছদেই জানিয়ে দেওয়া হয়েছে ডব্লিউ জি গ্রেস, ব্র্যাডম্যানদের গল্পে-আড্ডায় এক আশ্চর্য সময়ের কথা আছে ভেতরে। বলে রাখা ভালো, চিত্রিত সময়কালের বাইরে মাত্র দুটো চরিত্র আলোচিত হয়েছে এই বইয়ে। ব্র্যাডম্যান ও আমাদের অকালপ্রয়াত মানজারুল ইসলাম রানা। সেটা কাহিনির প্রয়োজনে। প্রচ্ছদটি নিয়ে সামান্য কথা আছে। বইটির বিবৃত প্রধান চরিত্র গ্রেস, কিন্তু বৈদ্য মহাশয় প্রচ্ছন্নভাবে আছেন পেছনের মলাটে। প্রচ্ছদে ব্র্যাডম্যানের জ্বলজ্বলে ছবি। এই বইয়ের যে ভাব ও রস, তাতে প্রচ্ছদে একটি বিমূর্ত ক্রিকেটগন্ধি জলরং বা তৈলচিত্র বইটি দাবি করতেই পারে। উৎপল শুভ্রর কল্পলোকে ক্রিকেটের গল্প সাধারণ পাঠককে গল্প পড়ার আনন্দ দেবে অবশ্যই, তবে ক্রিকেটমনস্ক পাঠককে দেবে পঠন আনন্দের বাইরেও অনেক কিছু। তরুণ ক্রিকেট খেলিয়েদের জন্য এই বই অবশ্যপাঠ্য। যে খেলাটিতে তাঁদের নৈতিক উত্তরাধিকার, তার ভিত রচনা করে যাঁরা অমরত্বে উত্তরিত হয়েছেন, সেই সব রক্ত-মাংসের মানুষকে কাছ থেকে দেখার ও জানার অত্যন্ত সুন্দর সুযোগ এই বই। বইয়ের শেষে লেখক এই বই লেখার গল্প বলেছেন, সেটা আকর্ষণীয়, তবে বিষয়টা প্রাক্-কথন হিসেবে এলে প্রথাগত হতো। না হয়ে অবশ্য খারাপ হয়নি। আরেক ধরনের নতুনত্বের স্বাদ পাওয়া গেছে। লেখক বইটি উৎসর্গ করেছেন সাংবাদিকতার দিকপাল প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমানকে। লেখক বলেছেন, মতি ভাই তাঁর কাছে সম্পাদকের চেয়েও একটু বেশি। হবেনই তো, তিনি যে সাবেক ক্রিকেটার। সোজা ব্যাটে ব্যাট করতেন ভিক্টোরিয়া স্পোর্টিংয়ের হয়ে। <br /> সুমুদ্রিত বইটি প্রকাশ করেছে প্রথমা। ১৪৪ পৃষ্ঠার এ বইয়ের দাম ৩০০ টাকা। তবে দাম আরেকটু কম হলে তরুণ ক্রিকেটারদের কিনতে সুবিধা হতো বলে মনে হয়।