১৬০.০০ টাকা ২০% ছাড় ২০০.০০ টাকা

২০০৮ সালে প্রকাশিত গল্পগ্রন্থ গরিবি অমরতা দিয়ে বাংলা গল্পের পাঠককে চমকে দিয়েছিলেন সুমন রহমান। নিরপরাধ ঘুম তাঁর দ্বিতীয় গল্পগ্রন্থ। তিনি লেখেন খুব কম, কিন্তু মনে দাগ কাটার মতো করে লেখেন। সমকালের প্রখর ও মেধাবী পর্যবেক্ষণ হাজির আছে এই বইতেও। আমাদের জীবনের নীরবে এড়িয়ে চলা অংশ তাঁর গল্পের বিষয়বস্ত্ত। তাঁর গল্প একই সঙ্গে তীব্র ও সংবেদনশীল। এর পাশাপাশি অনিঃশেষ আতঙ্ক, শান্ত প্রবঞ্চনা আর বিপন্ন যৌনতা গল্পগুলোকে অন্য মাত্রা দিয়েছে। 

পছন্দের তালিকায় রাখুন

বইয়ের বিবরণ

অবধারিত এবং গূঢ় সব নৈরাশ্যের অতল থেকে উঠে এসেছে এসব গল্প, অভিযোগহীন, একেক টুকরো শান্ত আনন্দ নিয়ে। আসবার পথে পথে ভীষণ প্ররোচনা ছিল—তথ্যের তত্ত্বের সত্যের রুচির মতাদর্শের এমনকি সাহিত্যিক সামাজিকতারও। সুমন রহমান সেসবের খপ্পরে পড়ে নৈতিক গোয়েন্দা হয়ে ওঠেননি, আবার নেহাত বোবা কাহিনিকার হওয়ার সাধনাও তাঁর নয়। জীবনের চরম ও পরম বিপন্নতাগুলোকে ধরবার চেষ্টা আছে এই আখ্যানগুলোতে, অত্যন্ত সমসাময়িক সব ঘটনা ও অঘটনের বয়ানের মারফতে। নিরপরাধ ঘুম কোনো অমর্ত্যলোকের অচেনা মানুষের গল্প বলে না, চেনা-জানা মানুষেরই উন্মোচন ঘটে এই বইতে। পরিণামে তারা অচেনা আর আশ্চর্যমণ্ডিত হয়ে ওঠে। 

আলোর উৎস কিংবা ডিভাইসের কারণে বইয়ের প্রকৃত রং কিংবা পরিধি ভিন্ন হতে পারে।

সুমন রহমান

জন্ম ১৯৭০ সালে, ভৈরবে। পড়াশোনা করেছেন দর্শনশাস্ত্র, উন্নয়ন অধ্যয়ন ও সাংস্কৃতিক অধ্যয়নে। প্রবন্ধ বেরিয়েছে দেশ-বিদেশের সুপরিচিত জার্নাল ও সাময়িকপত্রে। তাঁর ‘নিরপরাধ ঘুম’ গল্পটি কমনওয়েলথ ছোটগল্প পুরস্কারের সংক্ষিপ্ত তালিকায় উঠে এসেছে। কমনওয়েলথ পুরস্কারের ইতিহাসে বাংলাদেশ, বাংলা ভাষা তথা ইংরেজি-ভিন্ন যেকোনো ভাষা থেকে এটি প্রথম ঘটনা। প্রকাশিত বই—কবিতা: ঝিঁঝিট, সিরামিকের নিজস্ব ঝগড়া ; গল্প: গরিবি অমরতা ; প্রবন্ধ: কানার হাটবাজার ; সম্পাদনা: দেখা না-দেখার চোখ।

এই বিষয়ে আরও বই
আলোচনা ও রেটিং
০(০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
আলোচনা/মন্তব্য লিখুন :

আলোচনা/মন্তব্যের জন্য লগ ইন করুন