৪৮০.০০ টাকা ২০% ছাড় ৬০০.০০ টাকা

তাজউদ্দীন আহমদের ডায়েরি আমরা পড়ব দুই কারণে। তাজউদ্দীন আহমদকে ঘনিষ্ঠভাবে চিনবার জন্য এবং সেই সঙ্গে তাঁর সময় ও সমাজকে জানবার জন্য। দুটোরই দরকার আছে। ইতিহাস না বুঝলে আমরা নিজেদের চিনব কী করে, জানব কেমন করে কোথায় আমাদের গৌরব, কোনখানে গ্লানি, এবং কী করেই বা হাত দেব ইতিহাসকে বদলানোর কাজে? 

পছন্দের তালিকায় রাখুন

বইয়ের বিবরণ

তাজউদ্দীন আহমদের ডায়েরির এ খণ্ডটি তাঁর ১৯৫৪ সালের দিনলিপি নিয়ে। সময়টি ছিল আমাদের জাতীয় ইতিহাসের অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ অধ্যায়। পূর্ব বাংলার প্রাদেশিক নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ওই বছর ক্ষমতাসীন মুসলিম লীগের বিরুদ্ধে যুক্তফ্রন্ট গঠনের উদ্যোগ নেওয়া হয়। এই যুক্তফ্রন্ট গঠন নিয়ে অবশ্য দলগুলোর মধ্যে অনেক মতবিরোধ ছিল। তারপরও যুক্তফ্রন্ট গঠিত হয় এবং নির্বাচনে এই জোট বিরাট সাফল্য অর্জন করে। মুসলিম লীগের চরম ভরাডুবি হয়। তাজউদ্দীন নিজে যুক্তফ্রন্টের প্রার্থী হিসেবে বিপুল ব্যবধানে পরিষদ সদস্য নির্বাচিত হন। কিন্তু শরিক দলগুলোর পারস্পরিক মতবিরোধ ও দ্বন্দ্বের কারণে যুক্তফ্রন্ট সরকার স্থায়ী হতে পারেনি। পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় সরকার যুক্তফ্রন্ট মন্ত্রিসভা ভেঙে দেয় এবং প্রদেশে গভর্নরের শাসন জারি করে। এসব এবং পাশাপাশি ঘটে যাওয়া আরও নানা কৌতূহলোদ্দীপক ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী বা সাক্ষী ছিলেন তাজউদ্দীন আহমদ। তাঁর লেখা দিনলিপিতে সেদিনের সে ঘটনাপ্রবাহের অন্তরঙ্গ ও বস্ত্তনিষ্ঠ বর্ণনা পাবেন পাঠক। গবেষকদেরও বইটি কাজে লাগবে। 

আলোর উৎস কিংবা ডিভাইসের কারণে বইয়ের প্রকৃত রং কিংবা পরিধি ভিন্ন হতে পারে।

এই বিষয়ে আরও বই
আলোচনা ও রেটিং
০(০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
আলোচনা/মন্তব্য লিখুন :

আলোচনা/মন্তব্যের জন্য লগ ইন করুন