বইয়ের বিবরণ

অন্ধকার রাতে ঘরের মধ্যে হেঁটে বেড়ায় কে? কে চিত্কার করে বন্ধ আলমারির মধ্যে? পুতুলের পক্ষে সত্যিই কি সম্ভব নিজের মতো করে কথা বলা? প্রশ্নগুলোর উত্তর খোঁজার চেষ্টায় নামল রিতু-সেতু। পড়ে গেল ভয়ংকর ঝুঁকির মধ্যে! কী হলো শেষমেশ?
পাশের বাড়ির ডাস্টবিনে একটা পুতুল পেল রিতু। সাধারণ পুতুল নয়, ভেন্ট্রিলোকুইস্টরা যে পুতুল দিয়ে কথা বলার খেলা দেখান সেরকম। পুতুলের নাম দিল সে টনি। রিতুর যমজ বোন সেতুরও শখ একই রকম একটা পুতুলের। মেয়ের শখ মেটাতে তাকেও একটা পুতুল কিনে দিলেন বাবা। নতুন পুতুলের নাম মিকি। কিন্তু ইচ্ছেপূরণের আনন্দ অচিরেই আতংকে রূপ নিল দুই বোনের। অন্ধকার রাতে ঘরের মধ্যে হেঁটে বেড়ায় কে? কে চিত্কার করে বন্ধ আলমারির মধ্যে? পুতুলের পক্ষে সত্যিই কি সম্ভব নিজের মতো করে কথা বলা? প্রশ্নগুলোর উত্তর খোঁজার চেষ্টায় নামল রিতু-সেতু। সে চেষ্টা করতে গিয়ে নিজেরাই পড়ে যাবে ভয়ংকর ঝুঁকির মধ্যে তা কল্পনাও করেনি। হাজার বছর আগে প্রাচীন পুরোহিতের মন্ত্রে ঘুমিয়ে পড়া পুতুল সত্যিই কি জেগে উঠেছে আবার? কী হলো শেষমেশ?

  • শিরোনাম জ্যান্ত পুতুল আতংক
  • লেখক আর এল স্টাইন, মোস্তাক শরীফ (অনুবাদক)
  • প্রকাশক প্র প্রকাশন
  • আইএসবিএন ৯৭৮৯৮৪৯৭৭২৫৭৬
  • প্রকাশের সাল ২০২৩
  • মুদ্রণ 1st Published
  • বাঁধাই হার্ডকভার
  • পৃষ্ঠা সংখ্যা ১১২
  • দেশ বাংলাদেশ
  • ভাষা বাংলা

আলোর উৎস কিংবা ডিভাইসের কারণে বইয়ের প্রকৃত রং কিংবা পরিধি ভিন্ন হতে পারে।

এই বিষয়ে আরও বই
আলোচনা ও রেটিং
০(০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
আলোচনা/মন্তব্য লিখুন :

আলোচনা/মন্তব্যের জন্য লগ ইন করুন