স্বাধীনতাযুদ্ধের গোপন বিদ্রোহী কমান্ডার মোয়াজ্জেম

লেখক: মুহাম্মদ লুৎফুল হক

বিষয়: জীবনী/আত্মকথা/স্মৃতিকথা, নতুন বই, বইমেলা ২০২১

২৪০.০০ টাকা ২৫% ছাড় ৩২০.০০ টাকা

লে. কমান্ডার মোয়াজ্জেম হোসেন ছিলেন বাংলাদেশের স্বাধীনতার অন্যতম স্বপ্নদ্রষ্টা। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর 
রহমানের পর তিনি ছিলেন আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলার দ্বিতীয় অভিযুক্ত ব্যক্তি। কিন্তু দেশের এই বীর সন্তান সম্পর্কে আমরা আজও কমই জানি। শহীদ মোয়াজ্জেম এবং তাঁর স্বাধীনতার উদ্যোগ সম্পর্কে জানতে সহায়ক হবে এ বই। 

পছন্দের তালিকায় রাখুন

বইয়ের বিবরণ

লে. কমান্ডার মোয়াজ্জেম হোসেন পাকিস্তানের শোষণ ও বঞ্চনা থেকে বাঙালিদের মুক্তির জন্য সশস্ত্র বিপ্লবের পরিকল্পনা করেছিলেন। ১৯৬০-এর দশকের শুরুতে পাকিস্তান নৌবাহিনীতে কর্মরত থাকাকালে তিনি এ লক্ষ্যে তাঁর কর্মতৎপরতা শুরু করেন। একপর্যায়ে এ উদ্যোগে তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সায়-সমর্থনও লাভ করেন। স্বাধীনতার জন্য এ প্রচেষ্টা অবশ্য সফল হয়নি। তবে কয়েক বছরের মধ্যে সশস্ত্র আন্দোলনের পথ ধরেই এ দেশ স্বাধীন হয়। তাঁর স্বপ্নের স্বাধীন দেশ তিনি দেখে যেতে পারেননি। ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ সকালেই পাকিস্তানি বাহিনী তাঁকে হত্যা করে। লেখক এ বইয়ে লে. কমান্ডার মোয়াজ্জেমের স্বাধীনতার উদ্যোগের বিশদ বিবরণ তুলে ধরতে চেষ্টা করেছেন। বিভিন্ন দলিল ও লে. কমান্ডার মোয়াজ্জেমের সঙ্গী ও নিকটজনদের কাছে থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে লেখা হয়েছে এ বই।

আলোর উৎস কিংবা ডিভাইসের কারণে বইয়ের প্রকৃত রং কিংবা পরিধি ভিন্ন হতে পারে।

মুহাম্মদ লুৎফুল হক

জন্ম ১৯৫৫, দিনাজপুরে। ১৯৭৭ সালে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীতে কমিশন পান। ২০০৫ সালে লেফটেন্যান্ট কর্নেল হিসেবে অবসর গ্রহণ করেন। প্রকাশিত গবেষণাগ্রন্থ: স্বাধীনতাযুদ্ধের বীরত্বসূচক খেতাব (২০০৬), বাঙালি পল্টন: ব্রিটিশ ভারতের বাঙালি রেজিমেন্ট (২০১২), সৈনিক নজরুল (২০১৩), মোহাম্মদ আলীর বাংলাদেশ বিজয় (২০১৬)। সম্পাদনা: রাজশাহী ১৯৭১ (যৌথ ২০১২), কামালপুর ১৯৭১ (২০১২), দিনাজপুর ১৯৭১ (২০১৩), মুক্তিযুদ্ধে ২ নম্বর সেক্টর এবং কে ফোর্স (২০১৩)।  

এই লেখকের আরও বই
এই বিষয়ে আরও বই
আলোচনা ও রেটিং
৫(১)
  • (১)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
  • (০)
আলোচনা/মন্তব্য লিখুন :

আলোচনা/মন্তব্যের জন্য লগ ইন করুন

Humayun kabir

০১ Apr, ২০২১ - ৩:০৯ PM

This book is extraordinary. All readers will very much interested to read it.